খোলা চিঠি।।মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে ৩৯ তম বিসিএস নন ক্যাডার ৮৩৬০ জন ডাক্তারের খোলা চিঠি।।

বরাবর
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা

বিষয়ঃ ৩৯তম বিশেষ বিসিএসের ৮৩৬০ জন অভিনন্দন পাওয়া উত্তীর্ণ অথচ সুপারিশবিহীন চিকিৎসকবৃন্দের দিকে সদয় দৃষ্টি প্রদান এবং প্রতিনিধিদলের সাক্ষাতপ্রাপ্তির আবেদন।

হে জননেত্রী,
হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশকে বাস্তবে রূপদান করতে আপনি যা গত ১০ বছরে করেছেন তা বঙ্গবন্ধুর শাহাদাৎ বরণের পরে এই বাংলার মাটিতে কোনদিন হয়নি।আপনি এই ছোট্ট বাংলাদেশকে সারা বিশ্বের কাছে উন্নয়নের রোল মডেলে পরিণত করেছেন।তার একটা অংশ স্বাস্থ্যখাত।

আপনার নেতৃত্বে ২০০৯ সালে গণমুখী স্বাস্হ্যনীতির ধারায় একবিংশ শতাব্দীর ঊষালগ্নে স্বাস্থ্যকে জনগণের দোড়গোড়ায় পৌঁছে দেবার যে চেষ্টা শুরু হয়েছিল তা গত এক দশকে শতধারায় বিকশিত হয়ে বাংলাদেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থাকে নিয়ে গেছে এক অন্য উচ্চতায়, সারা বিশ্বে তা এক অনুশ্রেয় মানদণ্ড।

হে লেডি উইথ দ্য ল্যাম্প,
বাংলাদেশের চিকিৎসক সংকট দূরীকরণের লক্ষ্যে আপনার মহতী উদ্দ্যোগ ছিল ২০১৭ সালে আপনার স্বাক্ষরিত ১০ হাজার ডাক্তার নিয়োগের অনুমোদন পত্র।যেটা দেখে আমরা প্রায় ৪০ হাজার ডাক্তার পোস্টগ্রাজুয়েশন, সংসার, চাকুরী ছেড়ে নিজেদের সবটুকু বাজি রেখে চেষ্টা করতে লাগলাম নিজেদেরকে যোগ্য প্রমাণ করার জন্য। বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশন সেখান থেকে আমাদের প্রায় ১৩২০০ ডাক্তার লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ ঘোষণা করে।তারই ধারাবাহিকতায় মৌখিক পরীক্ষা শেষে গত ৩০ এপ্রিল চূড়ান্ত ফলাফল ঘোষণা করা হয়।আমরা আশায় বুক বেঁধে ছিলাম যে আপনার অনুমোদনপত্রের বাস্তবায়ন এবারই হবে যেমনটা বারংবার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বলেছে। কিন্তু আমরা যে অভিনন্দন জেনে মেসেজ পেলাম তার চিত্রটা হলো ৪৭৯২ জনকে ক্যাডার হিসেবে সুপারিশ করা হয়েছে এবং আরো ৮৩৬০ জনকে উত্তীর্ণ কিন্তু নন ক্যাডার হিসেবে রাখা হয়েছে।প্রজ্ঞাপনে তো নন ক্যাডারভুক্তির কথা ছিল না। আমরা জানতে পারি পর্যাপ্ত পদ ফাঁকা না থাকার কারণে আমাদের সুপারিশ করা যায়নি।

হে মমতাময়ী,
আমরা এতগুলো ডাক্তার দিন রাত এক করে ক্যাডারভুক্ত হবার আশায় পরিবার পরিজনকে ছেড়ে সুদীর্ঘ ১ বছর অনেক চাপ নিয়ে নিজেদেরকে তৈরি করেছি।আমাদের অনেকের এটাই শেষ সুযোগ। দীর্ঘ দিনের লালিত স্বপ্ন ছিল আমরা বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলায় সরকারিভাবে চিকিৎসা সেবা দিব। MDG র মতো SDG অর্জনের অংশিদারিত্ব অর্জন করব। আমাদের অনেকেই পোস্টগ্রাজুয়েশন করেছি। উপজেলা লেভেলে কনসালটেন্ট পর্যায়ের চিকিৎসা দিব এরকম স্বপ্ন দেখেছি। বিভিন্ন সময়ে মাননীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রী মহোদয়দের প্রতিশ্রুতি শুনে আমরা আশায় বুক বেঁধেছি। আমরা যদি অনুত্তীর্ণ হতাম আমাদের কষ্ট হত না।সরকারী কর্মকমিশনের সকল পরীক্ষায় উত্তীর্ন হওয়া সত্ত্বেও অভিনন্দন জানিয়ে অত:পর পদ ফাঁকা না থাকার কারণে পদায়ন করা যাচ্ছে না এরকম খবরে আমাদের তরুণ সমাজের মনোবল গুড়িয়ে গেসে।

হে গনমানুষের নেত্রী,
আপনি বিগত ১০ বছরে স্বাস্থ্যব্যবস্থা কে গতিশীল করতে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়কে ভাগ করেছেন দুটি ভাগে।১২ হাজার নারী কে দিয়েছেন স্কিলড বার্থ এ্যাটেনডেন্ট প্রশিক্ষন, ১৩৮৮২ টি করেছেন কমিউনিটি ক্লিনিক।আপনি প্রতিষ্ঠা করেছেন , এশিয়ার মধ্যে সব থেকে বড় বার্ন ইউনিট-শেখ হাসিনা বার্ন এন্ড প্লাস্টিক সার্জারী ইউনিট, ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব ইএনটি, ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরো সাইন্স সহ আরো কত কি! দেশে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সকে ৫০ শয্যায় উন্নীত করা হয়েছে। অধিকাংশ জেলা সদর হাসপাতাল গুলোর শয্যা সংখ্যা কোনটিতে ১০০ থেকে ১৫০ শয্যা এমনকি ২৫০ শয্যা পর্যন্ত উন্নীত করা হয়েছে।

কিন্তু দুঃখ হয়, শয্যা সংখ্যা বৃদ্ধির সাথে সাথে সে অনুপাতে জনবলের পদ সৃষ্টি হয়নি। এখনও ২০০৮ সালের কাঠামো দিয়েই চলছে। যার নিদারুণ পরিণতি ভোগ করছেন এসব হাসপাতালে কর্মরত সীমিত জনবল এবং চিকিৎসা নিতে এসে ভোগান্তিতে পড়ছেন কোটি কোটি প্রান্তিক জনগোষ্ঠী।

হে চ্যা‌ম্পিয়ান অব দ্যা অার্থ,
বাংলা‌দে‌শে এখন তিন‌টি মে‌ডি‌কেল বিশ্ব‌বিদ্যালয়, ১১১ টি মে‌ডি‌কেল ক‌লেজ ও হাসপাতাল, ৪২৮ টি উপ‌জেলা স্বাস্থ্য কম‌প্লেক্স এবং দে‌শের প্রত্যন্ত অঞ্চল পর্যন্ত বিস্তৃত ১৬ হাজা‌রের অ‌ধিক ক‌মিউ‌নি‌টি ক্লি‌নিক ও ইউ‌নিয়ন সাব সেন্টার গু‌লো‌তে প্রায় পাঁচ লক্ষা‌ধিক স্বার্থ্য কর্মী এ দে‌শের ‌১৬ কো‌টি মানুষের সেবায় দিনরাত নিরলস ভা‌বে অাপনার নি‌র্দেশনায় কাজ ক‌রে যা‌চ্ছে।
সবগুলো পর্যায়ে এখনও প্রচুর পোস্ট ফাঁকা আছে। অর্ধেকের মত পোস্টে চিকিৎসক এটাচমেন্টে অন্য জায়গায় কর্মরত আছে। এভাবে কাগজে কলমে চিকিৎসক থাকলেও আদতে একজন চিকিৎসক দুই জায়গায় পদায়ন আছেন আর ভুগছে বাকি সবাই।

হে প্রিয় নেত্রী,
প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর মধ্যে চিকিৎসা সেবা কে মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতে বর্তমানে প্রবল চিকিৎসা সংকট মেটাতে বিপুল সংখ্যক ক্যাডার চিকিৎসক নিয়োগপ্রদান এখন সময়ের দাবি। নতুন পদ সৃষ্টি ও সৃজন করার মাধ্যমে আমাদের নিয়োগ দেওয়া আপনার জন্য কঠিন কোন বিষয় নয়। নিম্ন আয়ের দেশে যেভাবে চলেছে অপ্রতুল চিকিৎসক দিয়ে এখন মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হতে হলে একই পরিমাণ যথেষ্ট নয়।

ডাক্তারগণ লোকব‌লের অভা‌বে গ‌ড়ে প্রায় ১৬ ঘন্টা ক‌রে ডিউ‌টি ক‌রে যা‌চ্ছে। এ সংকট ঘুচা‌নোর জন্য WHO-এর হি‌সেব ম‌তে, এ‌দে‌শে অা‌রো ৫৬০০০ জন সরকা‌রি ডাক্তার প্র‌য়োজন। অামা‌দের বিশ্বাস অাপনার স্নে‌হের হাত ধ‌রে এ চি‌কিৎসক সংকট খুব দ্রুত নিরসন হ‌বে।

হে বঙ্গবন্ধুকন্যা,
দেশের যে কোন প্রান্তে জনগণের দোরগোড়ায় স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপন একটি অবিস্মরণীয় পদক্ষেপ। দেশে এখন পর্যন্ত ১৩৮২২ টি কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপিত হয়েছে। যেখানে সপ্তাহে ১ দিন চিকিৎসক যাবে। কিন্তু এই বিপুল পরিমাণ মানুষের স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করা ১ জনের পক্ষে সম্ভব নয়। এই ৮৩৬০ জন ডাক্তারকে ক্যাডারভুক্তিকরণ এই পদক্ষেপে রাখতে পারে অনেক বড় অবদান।সপ্তাহের সবগুলো দিনই পেতে পারে এই সেবা।

BMDC নীতিমালা চিকিৎসা শাস্ত্রের মৌলিক বিষয়গুলো (বেসিক সায়েন্স) এ প্রতি ১০ জন শিক্ষার্থীর জন্য ১ জন শিক্ষক থাকতে হবে। কিন্তু বাস্তবে সেই অনুপাতে সরকারি মেডিকেল শিক্ষক নেই।চিকিৎসা বিজ্ঞান হল হাতে কলমে শেখার বিষয়। যথাযথ শিক্ষক না থাকলে শিক্ষার মানে ঘাটতি রয়ে যাবে।

‌হে মাদার অব হিউম্যা‌নি‌টি,
অাপ‌নি অামা‌দের এই ছোট দে‌শে প্রায় দশ লক্ষ রো‌হিঙ্গা‌কে ঠাই দি‌য়ে মানবতার এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত গ‌ড়ে‌ছেন, যা সারা বিশ্ব‌কে তাক লা‌গি‌য়ে দি‌য়ে‌ছে। অাপ‌নার ভালবাসার ছোঁয়ায় অাপ‌নি চাই‌লেই পা‌রেন অামা‌দের তথা ৮,৩৬০ টি প‌রিবা‌রের মু‌খে হা‌সি ফুটা‌তে।।

হে জননী,
বিপুল সংখ্যক চিকিৎসক আরো নিতে হবে এমনটাই জেনেছি আমরা বাস্তবিক চিত্র থেকে। আমাদের দোষটা কোথায় তাহলে? আমরা উত্তীর্ণ হয়ে ৮৩৬০ জন চিকিৎসক অপেক্ষারত আছি, আমাদের থেকে ধাপে ধাপে পদায়ন করে আমাদের সম্ভাবনার দুয়ারটা খুলে দিন। এতগুলো চিকিৎসক উত্তীর্ণ বলে অভিনন্দন যখন জানানোই হল আবার নতুন করে পরীক্ষা নিয়ে চিকিৎসক পদায়নের প্রয়োজন কোথায়? আমাদের সবাইকে পদায়ন করলেও চিকিৎসক সংকট নিরসন হচ্ছে না , আরও প্রয়োজন থাকছে। নতুনদের জন্য পথ তো খোলা আছেই।সেখানে আমাদের কেন সুপ্রসন্ন নয় ? আমাদের বিভিন্নজন বিভিন্ন বয়সী। পদসৃজন করে ধাপে ধাপে নিয়োগ প্রদান করলে অবসরেও বিভিন্ন সময়ে যাবে । একই সাথে নিয়োগ দিলে একইসাথে অবসরে গিয়ে সংকট তৈরি হবে এমন সম্ভাবনাও নেই।

আমরা প্রতিনিধি দল এই ৮৩৬০ জন বিসিএস উত্তীর্ণ চিকিৎসক সরকারি সেবাদানের নিশ্চয়তা পেতে বেশ কিছুদিন বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ে প্রয়োজনীয় পদ সংখ্যার জট ছুটাতে ছুটোছুটি করেছি এবং শান্তিপূর্ণ কাজ করে যাচ্ছি। আমাদের কারণে যেন কোন দুর্ভোগ না তৈরি হয় এ উদ্দেশ্যে শক্তভাবে কিছু গোষ্ঠীকেও সামলে যাচ্ছি। মানববন্ধন, সংবাদ সম্মেলন করে শান্তিপূর্ণভাবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনার দৃষ্টি আকর্ষণের জন্য চেষ্টা করেই যাচ্ছি।

আমরা এতই হতভাগা । কত শত মানুষ আমাদের জননেত্রীর দেখা পেয়ে যান, কথা বলার সুযোগ পেয়ে যান। আমরা প্রতিনিধিদল হন্যে হয়ে চেষ্টা করে যাচ্ছি একবার আপনার সাক্ষাতপ্রাপ্তির জন্য। একটা বার আমাদের দিকে সদয় দৃষ্টি দিবেন , একবার দেখা করার সুযোগ হবে এটা কি খুব বড় দুরাশা?

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী,
আপনি রবি ঠাকুরের মোহনীয় বাংলায় উজ্জ্বল প্রতিচ্ছবি , আপনি নজরুলের ঝঞ্ঝা বিক্ষুব্ধ তরীর দূর প্রত্যয়ী এক নির্ভীক নাবিক, আপনি জীবনানন্দ দাশের গ্রাম বাংলার দুখিনী কৃষাণীর আলোর দিশারী, আপনি বঙ্গবন্ধুর পাল তোলা নৌকার দুই মাঝি, আপনার আদর্শ যেথা ভয় শূণ্য উচ্চ যেথা শির, আপনাকে আমাদের সালাম ও অভিনন্দন ও অভিবাদন।

প্রিয় নেত্রী,
আপনি কবি সুকান্ত ভট্টাচার্যের ভাষায় বলেছেন
চলে যাব–তবু আজ যতক্ষণ দেহে আছে প্রাণ
প্রাণপণে পৃথিবীর সরাব জন্জাল,
এ বিশ্বকে এ শিশুর বাসযোগ্য ক’রে যাব আমি–

আমরাও চাই দেশের উন্নয়নে নিজেদের আত্ননিয়োগ করে আপনার স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে।

এই ৮৩৬০ জন চিকিৎসক এর পক্ষ থেকে আশ্বাস দিচ্ছি যে, আপনার সারথী হতে চাই, আপনার সরকার আমাদেরকে দেশে যেখানে পদায়ন পদায়ন করবে সেখানে চিকিৎসা সেবা দিতে বাধ্য থাকব।

বঙ্গবন্ধু তুমি অভিধানে
শব্দ হয়ে ফোট সবার মনে
তাই তো মোদের বোল ফুটেছে
সকল দাবি মিটে যাবে
কন্যা তোমার বড়ই বুদ্ধিমতী
তাই তো তিনি সবার জননেত্রী
ঘুচিয়ে দিবেন সকল আঁধার কালো
দেখব আমরা নতুন আশার আলো।।

মাননীয় নেত্রী, মহান সৃষ্টিকর্তা আপনার মঙ্গল করুক।

জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু

নিবেদক

প্রতিনিধি দল
৩৯ তম বিশেষ বিসিএস (স্বাস্থ্য) পরীক্ষায় উত্তীর্ণ কিন্তু সুপারিশবিহীন ৮৩৬০ চিকিৎসকবৃন্দের পক্ষে

One comment

  1. https://articlesbaseblog.wordpress.com/2018/04/17/dowiedz-sie-jak-poderwac-dziewczyne/ https://buildyourownshedsite.wordpress.com/2018/04/14/jak-odzyskac-dziewczyne/ https://articlesbaseblog.wordpress.com/2018/04/17/dowiedz-sie-jak-poderwac-dziewczyne/ https://Articlesbaseblog.Wordpress.com/2018/04/17/dowiedz-sie-jak-poderwac-dziewczyne/ Most
    piano benches available online for purchase are new
    piano benches, packed in a box with the detachable legs stored
    inside. Unfortunately, the Go Cart Track had to be closed to generate opportinity for these developments.

    Cable operating companies also give a real case to provide
    their customers using services.
    https://articlesbaseblog.wordpress.com/2018/04/17/dowiedz-sie-jak-poderwac-dziewczyne/

    Like

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s